As-Sunnah Trust

প্রশ্নোত্তর

ক্যাটাগরি

প্রশ্নোত্তর 5798

প্রশ্ন

আমার স্বামী আমার কোনো ভরনপোষণ দেয় না। মাসে ৫০০ টাকাও দেয় না। আামার সব খরচ আমার বাবা দেয় বিয়ের পরও।এমন না সে বেকার।ছোট হলেও জব করে। সব টাকা তার বাবা মা কে দেয়। আমি টাকার কথা বললে ই ঝগড়া হয়। তার বাবা মায়ের টাকা দরকার মানলাম কিন্তু আমার তো কিছু হলেও অধিকার আছে। আমি টাকা চাইলে আমার গুনাহ হচ্ছে কি না?

উত্তর

কুরআনে আল্লাহ আল্লাহ তায়ালা বলেছেন, الرِّجَالُ قَوَّامُونَ عَلَى النِّسَاءِ بِمَا فَضَّلَ اللَّهُ بَعْضَهُمْ عَلَى بَعْضٍ وَبِمَا أَنْفَقُوا مِنْ أَمْوَالِهِمْ পুরুষরা মহিলাদের উপর কর্তৃত্ব করবে, কারণ আল্লাহ একজনকে অন্যজনের উপর শ্রেষ্ঠত্ব দান করেছেন এবং পুরুষেরা তাদের টাকা পয়সা খরচ করে। সূরা নিসা, আয়াত নং ৩৪।

বিদায় হজ্জের ভাষনে রাসূলুল্লাহ সা. বলেছেন, وَاسْتَحْلَلْتُمْ فُرُوجَهُنَّ بِكَلِمَةِ اللَّهِ وَلَكُمْ عَلَيْهِنَّ أَنْ لاَ يُوطِئْنَ فُرُشَكُمْ أَحَدًا تَكْرَهُونَهُ. فَإِنْ فَعَلْنَ ذَلِكَ فَاضْرِبُوهُنَّ ضَرْبًا غَيْرَ مُبَرِّحٍ وَلَهُنَّ عَلَيْكُمْ رِزْقُهُنَّ وَكِسْوَتُهُنَّ بِالْمَعْرُوفِ তোমরা তাদের লজ্জাস্থানকে হালাল করেছো আল্লাহর কালিমা দ্বারা… তাদের খাবার-দাবার ও পোশাকের দায়িত্ব তোমাদের ওপর। সহীহ মুসলিম, হাদীস নং ৩০০৯;সুনানু আবু দাউদ, হাদীস নং ১৯০৭। সুতরাং বিয়ের পর আপনার স্বামীর উপর আবশ্যক আপনার ভরন পোষণ দেওয়া। যদি তিনি সেটা না করেন তাহলে অন্যায় করছেন।

তবে বিভিন্ন সামাজিক সমস্যা এবং সঠিক শিক্ষার অভাবে বিয়ের প্রথমে এই ধরণের সমস্যা অনেক ক্ষেত্রে দেখা দেয়, পরে সব ঠিক হয়ে যায়। আপনি আল্লাহর কাছে দুআ করুন, সাথে সাথে স্বামীকে বুঝানোর চেষ্টা করুন, ইনশাআল্লাহ একদিন সব ঠিক হয়ে যাবে এবং আপনার শান্তিতে বসবাস করতে পারবেন।