As-Sunnah Trust

প্রশ্নোত্তর

ক্যাটাগরি

প্রশ্নোত্তর 5417

প্রশ্ন

আসসালামুয়ালায়কুম।আশা করি পুরো টা পড়ে উত্তর দিবেন। আমার পিতার সম্পূর্ণ টা হারাম। আমি সাবালক। কিন্তু আমার বাবা মা কোনভাবেই চায় না আমি উপার্জন করি।আমাকে বাধা দেয় । ছোট খাট হালাল কাজ করলে তাদের সম্মামানের ক্ষতি হবে এজন্য। এবং তারা চাই আমি হালাল ইনকাম এর চিন্তা মাথা থেকে মুছে দিয়ে শুধু পড়া লেখা করি। এখন আমার জন্য কি তাদের সম্পদ ভোগ করা জায়েজ। আমি দুই ধরনের মত পেয়েছি ১।আমার জন্য হারাম।এবং সাবালক হওয়া থেকে হিসাব করে সওয়াবের আশা দান করে দিতে হবে।কারণ শরিয়ত সাবালক সন্তানের উপর অন্যদের ভরন পোষনপর দ্বায়িত্ব দিয়েছে। ২।উপার্জন না শুরু না করা পর্যন্ত আমার জন্য জায়েজ।কারণ আমার বাবা উপার্জন করতে দিচ্ছে না এই ওজরে। এখন আমার জন্য কোনটা প্রজো্য্য আপনার মতে। যদি ১ হয় তাহলে সাবালক কত বছর থেকে শুরু এবং কি কি জিনিস এর হিসাব করব আর কি কি করব না। কিভাবে তাদের বোঝাতে পারি যাতে তারা হালাল উপার্জন করতে দেয়।এবং তাদের কে কিভাবে হারাম থেকে ফিরানোর জন্য সুন্দর ভাবে বোঝাতে পারি।

উত্তর

ওয়া আলাইকুমুস সালাম। ১২-১৩ বছর বয়সে ছেলেরা সাবালক বা প্রাপ্ত বয়স্ক হয়ে থাকে। স্বপ্নদোষ হলে সাবালক হয়েছে বলে ধরা হয়। প্রাপ্ত বয়স্ক ছেলেরা পিতার হারাম সম্পদ ভোগ করবে না, নিজের উপার্জনে খাবে, পরবে, থাকবে। আপনার পিতা মাতা বাঁধা দিবে, অধিকাংশ মানুষের পিতা মাতা বাঁধা দিবে। কিন্তু বাঁধা উপক্ষো করে হারাম থেকে বিরত থাকতে হবে। তাদেরকে কুরআন-হাদীস দিয়ে বুঝাবেন, হালাল উপার্জন করতে বলবেন। তারা হালাল উপার্জন করলে আপনি পড়াশোন চালিয়ে যেতে পারবেন, এগুলো তাদেরকে বলবেন। আমার দুআ করি আল্লাহ আপনার এই সমস্যা দূর করে দিন।