আস-সুন্নাহ ট্রাস্ট

প্রশ্নোত্তর

ক্যাটাগরি

প্রশ্নোত্তর 6958

বিবাহ-তালাক

প্রকাশকাল: 26 মে 2024

প্রশ্ন

আসসালামু আলাইকুম, আমি আপনার একটি অসহায় ছোট বোন,আমার খুব জরুরি একটা বিষয়ে সমাধান চাই..আমি বিবাহিত, আমার বিয়ে হয় ২০১৮ তে,আমার একটি ৫ বছরের ছেলে আছে…২০২১ সালে ঈদের আগের দিন কথা কাটাকাটি হওয়ায় আমার স্বামী আমাকে অনেক মারধর করে তারপর সে রাগবশত আমাকে বলে “তোকে তালাক দিলাম,১..২..৩….তালাক”….. কিন্তু কিছুক্ষণ পর সে আবার সব ঠিক করে নেয় বলে আমি রাগে বলেছি তালাক হবে না…আমি তখন কি করব কিছুই বুঝতে পারিনি….এরপর দিন যায়, মাস যায়,বছর যায় আমরা সংসার করতে থাকি,আমাদের প্রেমের বিয়ে তাই মায়ায় পড়ে গেছি, কিন্তু বিয়ে হয়েছে পরিবারের মতেই…হঠাৎ ২০২৩ থেকে আমার সংসারে খুব অশান্তি…আমাকে সে শুধু বলে তুই তো তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রী, চলে যা….কথায় কথায় এটাই বলে…. আমি তাকে অনেকবার বলেছি একটা শায়েখ এর সাথে কথা বলতে…কিন্তু তার সময় হয় না…আমার জানুয়ারি তে ২য় বাচ্চা কনসিভ হয়ে যায় ভুলে… আমাকে এখন খুব পাপী মনে হয়, বাচ্চাটা কি করব আমি….সে তো দুনিয়ায় আসার অধিকার রাখে,তালাক দিলে নাকি সংসার করা যায় না…কিন্তু আমি ২ সন্তান নিয়ে কোথায় যাবো??…ইসলামে নিশ্চয়ই কোনো সমাধান আছে….আমি আকুল আবেদন করছি ভাই এই পাপী বোনটাকে পাপমুক্ত করার একটি সমাধান দিন….আমি সংসারের অশান্তি, স্বামীর অবহেলা, বাচ্চা পালন ও গর্ভের সন্তান নিয়ে খুব মানসিকভবে হতাশাগ্রস্থ….আমি বাঁচবো কিনা তাও জানিনা, অতিদ্রুত একটি সমাধান দিন প্লিজ।

উত্তর

ওয়া আলাইকুমুস সালাম। ৩ তালাক দেয়ার পর স্বামী-স্ত্রীর সম্পর্ক আর বাকী থাকে না। সুতরাং আপনি বর্তমানে তার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছেন। আপনারা সংসার করতে পারবেন না।  বাচ্চা এই স্বামীর ঔরসজাত বলে বিবেচিত হবে। বাচ্চার সমস্ত খরচ তাকে বহন করতে হবে। বাচ্চা ভূমিষ্ট হওয়ার পর আপনি অন্যত্র বিবাহ করতে পারবেন। পরিবারের সাথে আলোচনা করে সকল সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবেন।