• -40%
    (15)

    আল্লাহর পথে দাওয়াত

    সর্বাবস্থায় অন্যায়ের প্রতি ঘৃণা ও অন্যায় অপসারণের জন্য হৃদয়ের আকুতি মুমিনের জন্য ‘ফরয আইন’। অন্যায়কে মেনে নেওয়া, ‘এমন তো হতেই পারে‘ বা ‘ওদের কাজ ওরা করছে আমি কি করব’ ইত্যাদি চিন্তা করে নির্বিকার থাকা বা অন্যায়ের প্রতি মনোকষ্ট অনুভব না করা ঈমান হারানোর লক্ষণ। আল্লাহ ও তাঁর রাসূলের (সা.) শিক্ষার অবমাননা যে মুমিনকে পীড়া না দেয় তার ঈমানের দাবী অসার।

    ৳ 30.00
  • -40%
    (9)

    ইসলামের নামে জঙ্গিবাদ

    গত নভেম্বর-ডিসেম্বরে হজ্জ উপলক্ষ্যে হারামাইন শরীফাইনে গমনের তাওফীক হয়েছিল। ইসলামী জাগরণের মধ্যে উগ্রতা ও বিচ্ছিন্নতার যে অশুভ ছায়া সে বিষয়ে কিছু লিখার বিষয়ে বারংবার মনে আবেগ তৈরি হয়। বারংবার আল্লাহর দরবারে আবেদন করেছিলাম, এ বিষয়ে তাঁর পছন্দনীয় কিছু কথা লিখার তাওফীক চেয়ে। দেশে ফিরে দেখলাম “ইসলামের নামে জঙ্গিবাদ” পুস্তিকাটির কপিগুলি শেষ হয়ে গিয়েছে। প্রথমে ভেবেছিলাম পুস্তিকাটি পুনর্মূদ্রণ করব। পরে সিদ্ধান্ত নিলাম পুনর্লিখনের। এ বিষয়ে ইতোমধ্যে লিখিত বিভিন্ন প্রবন্ধের তথ্য সংযোজন করে এবং হারামাইন শরীফাইনে যে বিষয়গুলি লেখার আবেগ অনুভব করেছিলাম সেগুলির মধ্য থেকে বিষয়সংশ্লিষ্ট কিছু কথা সংযোজন করে বইটি নতুনভাবে সাজিয়েছি।…

    ৳ 120.00
  • -40%
    (8)

    ঈদে মিলাদুন্নবী

    সাহাবায়ে কেরাম আমাদেরকে রাসূলুল্লাহ সা. এর প্রতি ভক্তি, ভালবাসা ও তা’যীমের সর্বোত্তম আদর্শ শিক্ষাদান করেছেন। তাঁরা প্রত্যেকে জীবনের প্রতিটি ক্ষণে সাধ্যমত রাসূলুল্লাহ সা. এর জীবন, কর্ম, আকৃতি, প্রকৃতি চিন্তা করতেন, তাঁর উপর সালাত ও সালাম পাঠ করতেন। তাঁরা সুযোগ পেলেই কয়েকজন একত্রিত হয়ে রাসুলুল্লাহ সা. এর জীবনী, সুন্নাত, সীরাত, শামাইল, তাঁর আকৃতি-প্রকৃতি নিয়ে আলোচনা করতে ভালবাসতেন। আমাদেরও দায়িত্ব হলো সুযোগ ও আবেগ মতো যত বেশি সম্ভব রাসূলুল্লাহ সা. এর জীবন কেন্দ্রিক মাহফিল ও মজলিস কায়েম করা। রাসূলুল্লাহ সা. কেন্দ্রিক যে কোনো আলোচনা তাঁর প্রতি আমাদের মহব্বত বৃদ্ধি করবে, যা আমাদের ঈমানের অন্যতম অংশ। এছাড়া আমাদের জীবনে আল্লাহর শ্রেষ্ঠ নিয়ামত তাঁর মহান নবীর উম্মত হওয়ার সৌভাগ্য। এগুলো সর্বদা আলোচনা করা ও শুকরিয়া জানানো আমাদের একান্ত প্রয়োজন।

    ৳ 24.00
  • -40%
  • -40%
    (32)

    কুরআন-সুন্নাহর আলোকে পোশাক, পর্দা ও দেহ-সজ্জা

    আধুনিক পাশ্চাত্য সভ্যতা মানুষের জৈবিক বা পাশবিক জীবনকেই একমাত্র উদ্দেশ্য হিসাবে গ্রহণ করেছে। এজন্য পাশ্চাত্য সভ্যতার দৃষ্টিতে ‘স্মার্টনেস’ বা ‘ব্যক্তিত্বে’-র অন্যতম বৈশিষ্ট্য ‘অহঙ্কার’। যাকে দেখলে যত ‘অহঙ্কারী’ বা ‘কঠিন’ মনে হবে সে তত বেশি ‘ব্যক্তিত্বসম্পন্ন’ বা ‘স্মার্ট’। পাশ্চাত্য পোশাক পরিচ্ছদে এই বৈশিষ্ট্য রক্ষার জন্য সদা চেষ্টা করা হয়।

    রাসূলুল্লাহ (সা.) এর নির্দেশ মত টাখনু পর্যন্ত পোশাক পরিধান করলে দেখতে খারাপ দেখায়, সেকেলে মনে হয় বা স্মার্টনেস পরিপূর্ণ হয় না সেজন্য টাখনুর নিচে নামিয়ে পোশাক পরতে হয়। আর এই অনুভুতিটির নামই অহমিকা, অহংকার, গর্ব ও গৌরব। স্মার্ট দেখানোর উদ্দেশ্যে পোশাক ভূলুণ্ঠিত করাকেই হাদীসের ভাষায় গৌরব বা গর্বভরে পোশাক ভূলুণ্ঠিত করা বলা হয়েছে। মনের গভীরে এই অহমিকা, “স্মার্ট দেখানোর” আগ্রহ ছাড়া কেউই ইচ্ছাকৃতভাবে পায়ের গিরা আবৃত করে পোশাক তৈরি করেন না বা পরেন না। সর্বোপরি উপরের হাদীসগুলি জানার পরে কেউ ভাবতে পারেন না যে ইচ্ছাকৃতভাবে পোশাক নামিয়ে পরা কোনোভাবে জায়েয হতে পারে।… বিস্তারিত জানতে “কুরআন-সুন্নাহর আলোকে পোশাক, পর্দা ও দেহ-সজ্জা” বইটি পড়ুন

    ৳ 216.00
  • -40%
    (3)

    কুরবানী ও জাবীহুল্লাহ

    কুরবানী বিষয়ক হাইকোর্টের রীট
    তাওরাত, যাবুর, ইঞ্জিল ও কুরআনের আলোকে

    কুরবানী ও জাবীহুল্লাহ

    ড. খোন্দকার আব্দুল্লাহ জাহাঙ্গীর
    পি-এইচ. ডি. (রিয়াদ), এম. এ. (রিয়াদ), এম.এম. (ঢাকা)
    অধ্যাপক, আল-হাদীস বিভাগ, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, কুষ্টিয়া

    ৳ 24.00
  • -40%
    Jiggasa O Jobab 1st V
    (9)

    জিজ্ঞাসা ও জবাব (১ম খণ্ড)

    প্রশ্ন-০৫: রমাযান মাসে রোযা রেখে নখ-চুল কি কাটা যাবে?
    উত্তর: বোন, উত্তর দেয়ার আগে একটু পেছনে যাই। রমাযানের রোযা কেন নষ্ট হয়! ইবাদত তো আপনার জন্য। আপনি যেন ইবাদতের মাধ্যমে সুন্দর মানুষ হন। আল্লাহ তাআলা পানাহার নিষেধ করেছেন। কাজেই পানাহার নয় এমন সবই করা যায়। নখ-চুল শুধু না, একটা হাত কেটে গেলেও রোযার কোনো ক্ষতি হবে না। আমরা অনেক সময় মনে করি, রক্ত বেরিয়ে গেলে রোযার ক্ষতি হয়। আসলে কিন্তু তা নয়। রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম রোযা অবস্থায় নিজে চিকিৎসার জন্য শরীর ছিদ্র করে হিযামা (শিঙ্গা লাগিয়েছেন) করেছেন। কাজেই আমাদের বুঝতে হবে, রক্ত বেরোলেও রোযা ভাঙে না, ইঞ্জেকশন নিলেও রোযা ভাঙে না। নখ-চুল কাটলে তো রোযা ভাঙার প্রশ্নই আসে না। রোযার কোনো ক্ষতিও হয় না।
    জিজ্ঞাসা ও জবাব ১ম খণ্ড
    ড. খোন্দকার আব্দুল্লাহ জাহাঙ্গীর রহ.
    ৳ 120.00
  • -40%
  • -40%
  • -40%
  • -40%
    (8)

    বাংলাদেশে উশর বা ফসলের যাকাত : গুরুত্ব ও প্রয়োগ

    বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে উশরের আলোচনা করতে গেলে অবশ্যই ইসলামের খারাজ ব্যবস্থার আলোচনা করতে হয়েছে। এরপর বাংলাদেশের ভূমির ধরন নির্ধারণ করতে চেষ্টা করেছি ও বাংলাদেশের ভূমির উশর বা খারাজ প্রদানের পদ্ধতিও আলোচনা করেছি। সবশেষে বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে উশরের কিছু প্রয়োজনীয় আহকাম আলোচনা করেছি। আলোচনার সুবিধার্থে বইটিকে নিুলিখিত পাঁচটি অধ্যায়ে ভাগ করেছি: প্রথম অধ্যায়: আরকানুল ইসলাম ও যাকাত, দ্বিতীয় অধ্যায়: উশর বা ফসলের যাকাত, তৃতীয় অধ্যায়: ইসলামী খারাজ ব্যবস্থা, চতুর্থ অধ্যায়: খারাজী ভূমি বনাম উশরী ভূমি ও পঞ্চম অধ্যায়: বাংলাদেশে ফসলের যাকাত প্রদান। বইটি রচনায় আমার ক্ষুদ্র সাধ্যের মধ্যে যথাসম্ভব হাদীস, তাফসীর ও ফিকহের প্রয়োজনীয় গ্রন্থাবলী অধ্যয়নের চেষ্টা করেছি। যে সকল গ্রন্থ থেকে সরাসরি উদ্ধৃতি দিয়েছি সে সকল গ্রন্থের একটি তালিকা বইটির শেষে প্রদান করেছি, যেন আগ্রহী গবেষকগণ তা থেকে সাহায্য গ্রহণ করতে পারেন।

    ৳ 150.00
  • -40%
  • -40%
  • -40%
    (6)

    সালাতুল ঈদের অতিরিক্ত তাকবীর

    আমার জ্ঞানের পরিধি খুবই সীমিত। কিন্তু পেশাগত কারণে আমি যেহেতু বিশ্ববিদ্যালয়ে “হাদীস” বিভাগে শিক্ষকতা করি এবং সমাজের অনেকে আমাকে “আলিম” বলে মনে করেন, সেহেতু আমার ছাত্ররা এবং সমাজের বিভিন্ন স্তরের দ্বীনদার মুসলিম বিভিন্ন সময়ে সালাতুল ঈদের তাকবীরের বিষয়ে আমাকে বারংবার প্রশ্ন করেছেন। কেউ প্রশ্ন করেছেন: আপনারা সালাতুল ঈদের ৬ তাকবীর কোথায় পেয়েছেন?…..বিস্তারিত জানতে বইটি পড়ুন

    ৳ 48.00
  • -40%
    (11)

    সালাতের মধ্যে হাত বাঁধার বিধান

    বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে উশরের আলোচনা করতে গেলে অবশ্যই ইসলামের খারাজ ব্যবস্থার আলোচনা করতে হয়েছে। এরপর বাংলাদেশের ভূমির ধরন নির্ধারণ করতে চেষ্টা করেছি ও বাংলাদেশের ভূমির উশর বা খারাজ প্রদানের পদ্ধতিও আলোচনা করেছি। সবশেষে বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে উশরের কিছু প্রয়োজনীয় আহকাম আলোচনা করেছি। আলোচনার সুবিধার্থে বইটিকে নিুলিখিত পাঁচটি অধ্যায়ে ভাগ করেছি: প্রথম অধ্যায়: আরকানুল ইসলাম ও যাকাত, দ্বিতীয় অধ্যায়: উশর বা ফসলের যাকাত, তৃতীয় অধ্যায়: ইসলামী খারাজ ব্যবস্থা, চতুর্থ অধ্যায়: খারাজী ভূমি বনাম উশরী ভূমি ও পঞ্চম অধ্যায়: বাংলাদেশে ফসলের যাকাত প্রদান। বইটি রচনায় আমার ক্ষুদ্র সাধ্যের মধ্যে যথাসম্ভব হাদীস, তাফসীর ও ফিকহের প্রয়োজনীয় গ্রন্থাবলী অধ্যয়নের চেষ্টা করেছি। যে সকল গ্রন্থ থেকে সরাসরি উদ্ধৃতি দিয়েছি সে সকল গ্রন্থের একটি তালিকা বইটির শেষে প্রদান করেছি, যেন আগ্রহী গবেষকগণ তা থেকে সাহায্য গ্রহণ করতে পারেন।

    ৳ 48.00
  • -40%
    (14)

    হজ্জ্বের আধ্যাত্মিক শিক্ষা

    আমরা আজ হজ্জ সম্পর্কে আলোচনা করব। হজ্জ করার পূর্বে যে বিষয়টি আমাদের জানতে হবে, সেটা হল হজ্জ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ইবাদত। প্রত্যেক ব্যক্তির মনে এই আকাক্সক্ষা থাকবে যে আমি খুব দ্রুতই হজ্জ করব।
    বিশেষ করে যুবকদের তারা তাদের যৌবনের শুরুতেই হজ্জ করার চেষ্টা করবে। আমাদের দেশে এক সময় ট্রেডিশন ছিল বৃদ্ধ বয়সে হজ্জ করা। এখন তা কমে আসছে।

    ৳ 24.00